মিথ্যা তথ্য দিয়ে ভাষা আন্দোলনের সঠিক ইতিহাস মুছে ফেলা যাবে না

রাজশাহীতে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় জামায়াত নেতারা বলেছেন, মিথ্যা তথ্য দিয়ে ভাষা আন্দোলনের সঠিক ইতিহাস মুছে ফেলা যাবে না। সরকার মানুষের বাকস্বাধীনতা আজ রুদ্ধ করে রেখেছে। অতীতের পাকিস্তানী সরকারের চেয়েও অনেক বেশী জোর-জুলুমের মাধ্যমে মানুষের মৌলিক অধিকার প্রতিনিয়ত নস্যাৎ করা হচ্ছে।

মহান শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা উপলক্ষে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর রাজশাহী মহানগরী শাখার উদ্যোগে অনুষ্ঠিত এক ভার্চুয়ালী আলোচনা সভায় তারা এসব কথা বলেন।

এতে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য ও রাজশাহী মহানগরী আমির মাওলানা ড. কেরামত আলী। জামায়াতে ইসলামীর রাজশাহী মহানগরী নায়েবে আমির অ্যাডভোকেট আবু মো: সেলিমের সভাপতিত্বে সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন সংগঠনটির রাজশাহী মহানগরী নায়েবে আমির অধ্যক্ষ সিদ্দিক হোসেন ও সেক্রেটারি ইমাজ উদ্দিন মন্ডল।

জামায়াতের মহানগর সহকারী সেক্রেটারি অধ্যাপক শাহাদাৎ হোসেনের সঞ্চালনায় সভায় আরো বক্তব্য রাখেন রাজশাহী মহানগরের অপর সহকারী সেক্রেটারি অধ্যক্ষ মাহবুবুল আহসান বুলবুল, অধ্যাপক আব্দুস সামাদ, সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যাপক মাজেদুর রহমান, প্রচার ও মিডিয়া সম্পাদক অধ্যাপক সারওয়ার জাহান, যুব সম্পাদক জসিম উদদীন সরকার প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।

প্রধান অতিথি মাওলানা কেরামত আলী বলেন, দেশের নতুন প্রজন্মের নিকট ভাষা আন্দোলনে ডাকসুর তৎকালীন জিএস ভাষা সৈনিক অধ্যাপক গোলাম আযমসহ আরো অনেকের ত্যাগ ও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালনের কথা জনগণের সামনে সঠিকভাবে তুলে ধরতে হবে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে অধ্যক্ষ সিদ্দিক হোসেন বলেন, ভাষার মাসে সরকার একদিকে মদের লাইসেন্স দিচ্ছে, অন্যদিকে চট্টগ্রামের বই মেলায় দেশের মানুষের প্রাণের ইসলামি জীবনাদর্শের প্রকাশনী নিষিদ্ধ করছে। তিনি এ ধরনের কর্মকাণ্ডের তীব্র প্রতিবাদ জানান।

সভাপতির বক্তব্যে আবু মো: সেলিম মাতৃভাষাকে আল্লাহর দান আখ্যায়িত করে এর মর্যাদা রক্ষায় সকলকে যথাযথ ভূমিকা রাখার আহ্বান জানান। সভায় শহীদদের মাগফিরাত কামনা করে দোয়া করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Previous post রাতের আঁধারে মুখে কাপড় বেঁধে মন্দির থেকে মূর্তি চুরি
Next post ৪০০ ছিন্নমূল মানুষকে শীতব্স্ত্র দিলো পুলিশ ও পুনাক