সিনহা হত্যা: রায় বাতিল চেয়ে প্রদীপ-লিয়াকতের আপিল

মেজর (অব.) সিনহা হত্যা মামলায় বিচারিক আদালতের রায় বাতিল এবং রদ চেয় হাইকোর্টে আপিল করেছেন মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত টেকনাফ থানার সাবেক ওসি (বরখাস্ত) প্রদীপ কুমার দাশ ও বাহারছড়া তদন্ত কেন্দ্রের সাবেক পরিদর্শক লিয়াকত আলী।

হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় সোমবার এই আপিল দায়ের করা হয়েছে বলে জানান সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী রানা দাশগুপ্ত।

ফৌজদারি কার্যবিধির ৩৭৪ ধারা অনুযায়ী বিচারিক আদালতের দেওয়া কোনো মৃত্যুদণ্ডের রায় অনুমোদনের জন্য মামলার নথি ডেথ রেফারেন্স আকারে হাইকোর্টে পাঠাতে হয়। সে অনুযায়ী প্রদীপ ও লিয়াকতের মৃত্যুদণ্ড অনুমোদনের (ডেথ রেফারেন্স) নথি গত ৮ ফেব্রুয়ারি হাইকোর্টে আসে।

২০২০ সালের ৩১ জুলাই রাতে কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভের শামলাপুর চেকপোস্টে গুলি করে হত্যা করা হয় সিনহাকে। গত বছরের ২৭ জুন প্রদীপসহ ১৫ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের মাধ্যমে এই হত্যা মামলার বিচার শুরু হয়। নয়জন প্রত্যক্ষদর্শীসহ ৬৫ জনের সাক্ষ্য নিয়ে কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মোহাম্মদ ইসমাইল গত ৩১ জানুয়ারি জনাকীর্ণ আদালতে আলোচিত এই হত্যা মামলার রায় ঘোষণা করেন। রায়ে প্রদীপ ও লিয়াকতের মৃত্যুদণ্ডের পাশাপাশি আরো ছয় আসামিকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়া হয়। আর অভিযোগ থেকে খালাস পান সাত আসামি।

এই রায়ে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- বাহারছড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের এসআই নন্দ দুলাল রক্ষিত, টেকনাফ থানার কনস্টেবল রুবেল শর্মা ও এএসআই সাগর দেব এবং সিনহার সঙ্গীদের বিরুদ্ধে করা মিথ্যা মামলার তিন সাক্ষী, পুলিশের সোর্স নুরুল আমিন, নেজাম উদ্দিন ও মোহাম্মদ আয়াজ।

খালাস পাওয়া আসামিরা হলেন- বাহারছড়া তদন্ত কেন্দ্রের কনস্টেবল সাফানুর করিম, কামাল হোসেন ও আব্দুল্লাহ আল-মামুন, এএসআই মো. লিটন মিয়া, এবং এপিবিএন এর এসআই মোহাম্মদ শাহজাহান, কনস্টেবল মোহাম্মদ রাজীব ও মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Previous post আমি সকল রাজনৈতিক দলের শুভানুধ্যায়ী: ডা. জাফরুল্লাহ
Next post বিদায়ী ইসিকে নিয়ে ট্রলকারীদের নির্দিষ্ট করে রাখা দরকার: শিক্ষা উপমন্ত্রী