পুতিনকে ফোন করে পেয়েছি নীরবতা : ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, রাশিয়া এখন যেকোনো দিন ‘ইউরোপে একটি বড় যুদ্ধ’ শুরু করতে পারে। তিনি রাশিয়ার নাগরিকদের প্রতি এর বিরোধিতা করার আহ্বান জানিয়েছেন।

বুধবার স্থানীয় সময় দিবাগত গভীর রাতে এক ভাষণে জেলেনস্কি বলেছেন, তিনি রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে আলোচনার চেষ্টা করেছেন। তিনি বলেন, ‘আমি রাশিয়ান ফেডারেশনের প্রেসিডেন্টের সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেছি।

ফলাফল : নীরবতা। ’
জেলেনস্কি বলেন, ইউক্রেনের সীমান্তে রাশিয়ার প্রায় দুই লাখ সৈন্য এবং হাজার হাজার যুদ্ধযান রয়েছে। মাতৃভাষা ইউক্রেনীয়র বদলে সে দেশে প্রচলিত অন্যতম ভাষা রুশে দেওয়া এক আবেগপূর্ণ ভাষণে জেলেনস্কি বলেন, রুশদের ইউক্রেন সম্পর্কে মিথ্যা বলা হচ্ছে।

তিনি বলেন, ‘কে (যুদ্ধ) থামাতে পারে? রাশিয়ার জনগণ। এই লোকেরা আপনাদের মধ্যেই আছে, আমি নিশ্চিত। ’

ইউক্রেনের নেতা আরো বলেন, তার দেশ রাশিয়ার আক্রমণের জন্য প্রস্তুত ছিল। ‘যদি তারা [রাশিয়া] আক্রমণ করে, যদি তারা আমাদের স্বাধীনতা, আমাদের জীবন, আমাদের শিশুদের জীবন বিপন্ন করে – আমরা নিজেদের রক্ষা করব। ’

তিনি বলেন, ‘আপনি আক্রমণ করার সময় আমাদের মুখই দেখতে পাবেন, পিঠ নয়। ’
সূত্র : বিবিসি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Previous post সারা দেশে ১০ দিনের বিক্ষোভ ডেকেছে বিএনপি
Next post ১০ জনের তালিকা প্রকাশের দাবি টিআইবির